1. webprominhaz@gmail.com : Admin :
  2. Aktar@gmail.com : AKTAR hosen : AKTAR hosen
  3. amirbinsultan95@gmail.com : Amirbin Sultan : Amirbin Sultan
বিজ্ঞপ্তি :
  • পরীক্ষামূলক সম্প্রচার
শিরোনাম :
কক্সবাজার জেলার কবি মুহাম্মদ নূরুল হুদা বাংলা একাডেমির মহাপরিচালক মনোনীত হলেন পুসাহ’র উপদেষ্টা কমিটির বৈঠক অনুষ্ঠিত | দৈনিক জাগ্রত বিবেক ঢাকাস্থ বরুড়া উপজেলা জনকল্যাণ সমিতির ১ লাখ টাকা অনুদান তাকওয়া ফাউন্ডেশন বরুড়া উপজেলা শাখার লাশ দাফন টিম ২ এর ৩৫ তম গোসল কাফন জানাজা দাফন সম্পন্ন। আত্মপরিচয় ও আমাদের হীনমন্যতা | মুহাম্মদ রমিজ উদ্দীন টর্নেডো ক্ষতিগ্রস্তদের মাঝে খাদ্য ও নগদ অর্থ সহায়তা ওরাই আপনজন সংগঠন | দৈনিক জাগ্রত বিবেক সমাজ সংস্কার-৩য় পর্ব | আব্দুল আজিজ অপসংস্কৃতি রোধে চাই সম্মিলিত প্রয়াস: মুহাম্মদ আলতাফ হোসেন | জাগ্রত বিবেক কী পড়বো? তোফায়েল গাজালি | জাগ্রত বিবেক কৃতিত্বের মানদণ্ডে শেখা না কি শেখানো: রমিজ উদ্দিন

সালফি পাবলিকেশন্স পাণ্ডুলিপি পুরস্কার ২০২০ প্রদান অনুষ্ঠান | দৈনিক জাগ্রত বিবেক

  • আপডেট টাইম : Wednesday, June 23, 2021
  • 199 বার পড়া হয়েছে

চট্টগ্রাম প্রতিনিধি: কবি মুহাম্মদ হেদায়ত উল্লাহ

‘স্বপ্নের রঙ খুঁজি বইয়ের পাতায়’ শ্লোগান ধারণ করে যাত্রা শুরু করে খুব স্বল্প সময়ে সুনাম অর্জন করে সালফি পাবলিকেশন্স। উক্ত প্রকাশনা সংস্থা ২০২০ সালে পাণ্ডুলিপি আহবান করেছিল। সেখানে অসংখ্য পাণ্ডুলিপি থেকে চারটি পাণ্ডুলিপি নির্বাচিত হয়। যা ২০২১ এর একুশে গ্রন্থমেলা উপলক্ষে প্রকাশিত হয়েছিল। সেই সেরা চারটি পাণ্ডুলিপির পুরস্কার প্রদান করা হয়। আজ বুধবার (২৩ জুন) সন্ধ্যা সাতটায় সালফি পাবলিকেশন্স এর কার্যলয়ে অনুষ্ঠিত অনুষ্ঠানে সভাপতি ছিলেন সালফি পাবলিকেশন্স এর সত্ত্বাধিকারী মিনহাজুল ইসলাম মাসুম। এবং অতিথিদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন লেখক অভিজিৎ বড়ুয়া অভি, কবি শিহাব ইকবাল, কবি ও সাংবাদিক মুহাম্মদ কামরুল ইসলাম, কবি কুতুবউদ্দিন বখতিয়ার, আলমগীর ইমন, তরুণ কবি ও ছড়াকার মুহাম্মদ হেদায়ত উল্লাহসহ অনেকে। পুরস্কার বিজয়ী লেখকের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন কবি ও প্রবন্ধকার শাহ মোহাম্মদ নেয়ামত উল্লাহ, তরুণ ঔপন্যাসিক মুহাম্মদ রমিজ উদ্দিন। এবং বিশ্বব্যাপী করোনাভাইরাস ও দূরত্বের কারণে পুরস্কার বিজয়ীদের মধ্য থেকে দুজন উপস্থিত হতে পারেনি। তারা হলেন ইউনুস আহমেদ ও মনিরা মিতা।

উক্ত অনুষ্ঠানে কামরুল ইসলাম ইংরেজি একটি উক্তি উল্লেখ করে বলেন,
‘literature is truly the reflection of life and human experiences.’
সাহিত্য এমন একটা বিষয় যা নিজেকে এবং অপরকে আলোকিত করে। যে সাহিত্য মানুষের উপকারে আসে না তা সাহিত্য নয়, বরং সাহিত্যের নামে কলঙ্ক। পুরুস্কার প্রাপ্তদের অভিনন্দন জানিয়ে তিনি বক্তব্য শেষ করেন।

মেরনসান স্কুলের প্রধান শিক্ষক শিহাব ইকবাল বলেন-
সহিত থেকে সাহিত্য শব্দটা এসেছে। তাই সাহিত্য ও সাহিত্যিকদের সাথে আত্মার সম্পর্ক রয়েছে। তিনি এমন মহামারির দিনেও সবাইকে একসাথে পেয়ে উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেছেন।

লেখক অভিজিত বড়ুয়া-
লেখকের সবচেয়ে বড় কাজ পাঠক হওয়া। বেশি বেশি পড়া। যে যত বেশি পড়বে, তার লেখা তত সমৃদ্ধ হবে। বর্তমানে পাঠক কমে যাচ্ছে বলে তিনি আশঙ্কা করে সালফি পাবলিকেশন্সকে কিছু পরামর্শও দেন। তিনি বলেন – আপনারা লেখকদের থেকে পাঠকদের বেশি পুরস্কার দেবেন। পাঠক সমাবেশের আয়োজন করবেন। তিনি বলেন, পাঠক না থাকলে লেখক কার জন্য লিখবেন? সবশেষে তিনি বিভিন্ন লাইব্রেরিতে নিজেদের প্রকাশিত বই প্রেরণ করার পরামর্শ প্রদান করে বক্ত্যের ইতি টানেন।

সবশেষে পুরস্কার প্রাপ্ত কবি ও সাহিত্যিকদের হাতে সনদ ও ক্রেস্ট তুলে দেন অথিতিরা।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2020 Amir Hossen
Customized BY NewsTheme